অভিনয় ছাড়ার ঘোষনা শবনম ফারিয়ার

সময় বাংলা, বিনোদন ডেস্ক: নাট্য অভিনেত্রী শবনম ফারিয়া আর অভিনয় করবেন না, সোমবার রাত সাড়ে বারটার দিকে এক ফেসবুকে তিনি এমনটি জানিয়েছেন তার দর্শকদের জন্য।

স্টাটাসে তিনি যা লিখেছেন” আমার অভিনয় জীবন শুরু করার পরেই মনে হয়েছিল এই যায়গাটা আমার জন্য না। লাস্ট দুই বছর চেষ্টা করেছি, জানি না কতটা সফল!  কিন্তু অল্প সময়ে অনেক মানুষ এর ভালবাসা পেয়েছি, আমি তাতেই খুশি।

যাইহোক, আমার ব্যক্তিগত কারনে আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি, আমি আর “নাটকে” অভিনয় করবো না। সিদ্ধান্ত নেয়ার অনেক কারন ছিল। প্রথমত, অভিনয়ের জন্য মাস্টার্সটা করি করি করে করা হচ্ছিল না। দ্বিতীয়ত , আমি মেরুদণ্ড সোজা করে চলতে চাই, হিপক্রেসি কোন দিন আমার ডিকশনারিতে ছিল না, রাখতে চাই না। এই জায়গায় কাজ করে সেইটা রাখা সম্ভব না। এখানে কেউ সত্যি মেনে নিতে পারে না, পারে সুধু ক্ষমতা দেখাতে।

কোন ছোটলোককে যদি একটা ক্ষমতা দেয়া হয়, সে তার অইটুকু ক্ষমতার পুরাটাই ইউস করে, কারন তার দৌড় অইটুকু পর্যন্তই। এর বাইরে তার আর কোন ক্ষমতা নেই।

যাইহোক, সামনে যারা মিডিয়াতে কাজ করতে চাও তাদের উদ্দেশ্য করে বলছি, “এখানে কোন সুস্থ স্বাভাবিক শিক্ষিত মানুষ আত্বসন্মান নিয়ে কাজ করতে পারবে না, কাজ করতে হলে গন্ডার হতে হবে, “কিছু” অশিক্ষিত মানুষ কে হুজুর হুজুর করতে হবে, “কিছু” কথাটা বললাম কারন একটি শিক্ষিত মানুষ সত্যি কথা মেনে নিতে পারে।

আমি কাউকে তওয়াক্কা করিনি তাই আমি নিজ থেকে নিজে কুইট করছি। আমি বলছি না সবাই খারাপ, এখানে অনেকে আছে যারা নিজের সন্তান এর মত, বোন এর মত আদর করেছে কিন্তু কিছু মানুষ আছে যারা সামনে হাসি দিয়ে পিছনে ছুড়ি মারতে পিছুপা হয় না।

আর শেষ একটা কথা যারা ভাবেন মিডিয়া মানে খারাপ তারা ভুল, এখানে অনেক ভাল মানুষ আছেন। ভাল পরিবারের শিক্ষিত লোক আছে, আর তারা আছে বলেই মিডিয়া এখনো টিকে আছে। হ্যা খারাপ হয়ার সুযোগ আছে, কেউ নিজ থেকে চাইলে খারাপ হতে পারে, সবটাই নিজের উপর।

সবাই ভাল থাকবেন, আমার জন্য দোয়া করবেন যাতে ভাল মানুষ হয়ে, মেরুদণ্ড সোজা করে বাঁচতে পারি। যাদের আলরেডি সিডিউল দেয়া তাদেরটা শেষ করেই পালাবো, দয়া করে ব্যাখ্যা চাইয়া কল করবেন না। আমার এই স্ট্যাটাসের বাইরে আর কিছু বলার নাই।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন