কুমিল্লায় প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীতে পাশের হার ৯২.৯৩

কুমিল্লা প্রতিনিধি: কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার পাশের হার ৯২.৯৩ শতাংশ। এবছর প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ১ লাখ ১৪ হাজার ৭৮৯ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে পাশ করেছে ১ লাখ ৬ হাজার ৭৩৬ জন শিক্ষার্থী। এর মধ্যে ৪৭ হাজার ৩ জন বালক এবং ৫৯ হাজার ৭৩৩ জন বালিকা পাশ করেছে। বালকের পাশের হার ৯২.৪৬ এবং বালিকাদের পাশের হার ৯৩.৩৯ শতাংশ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৮ হাজার ২৬ জন শিক্ষার্থী। এর মধ্যে ৩ হাজার ১১৪ জন বালক এবং ৪ হাজার ৯১২ জন বালিকা জিপিএ-৫ পেয়েছে।

এদিকে, এবছর কুমিল্লায় জেএসসি পরীক্ষায় পাসের হার ৬২ দশমিক ৮৩ শতাংশ। এর মধ্যে ছেলেদের পাসের হার ৬৪ দশমিক ৮৬ শতাংশ আর মেয়েদের পাসের হার ৬১ দশমিক ৩৯ শতাংশ। এবছর জেএসসি পরীক্ষায় মোট ২লক্ষ ৬১হাজার ৭৫৩জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে পাশ করেছে ১লক্ষ ৬৪ হাজার ৪৫৬জন শিক্ষার্থী। এর মধ্যে ৭০হাজার ৩৭৪জন ছেলে এবং ৯৪ হাজার ৮২জন মেয়ে পাশ করেছে।

গত দুই বছরে ধারাবাহিকভাবে কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে ক্রমান্বয়ে কমেছে পাশের হার। ২০১৪ সালে কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে জেএসসি পরীক্ষায় পাশের হার ৯৩.৭৫ শতাংশ। তা কমে ২০১৬ সালে পাশের হার দাড়ায় ৮৯.৬৮ শতাংশ। এদিকে ২০১৭ সালে কুমিল্লায় জেএসসি পরীক্ষায় পাশের হার দাড়িয়েছে ৬২.৮৩ শতাংশ। যা গত বছরের তুলনায় ২৬ দশমিক ৮৫ শতাংশ কম।

জিপিএ-৫ কমেছে অর্ধেকের বেশি 

কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডে পাশের হার কমার পর গত বছরের তুলনায় এবছর অর্ধেকেরও বেশি কমেছে জিপিএ ৫ প্রাপ্তির হার। এ বছর মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে ৮ হাজার ৮৭৫ জন শিার্থী। এর মধ্যে ৩ হাজার ৩৭৫ জন ছেলে এবং ৫ হাজার ৫০০ জন মেয়ে জিপিএ-৫ পেয়েছে। এদিকে ২০১৫ সালে জিপিএ-৫ পেয়েছিল ২০ হাজার ৭৪৭ জন শিক্ষার্থী, তা কমে ২০১৬ সালে জিপিএ-৫ পায় ১৯ হাজার ১৮৬ জন। এবছর জিপিএ-৫ কমেছে ১০ হাজার ৩১১টি। এরআগে ২০১৩ সালে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৬ হাজার ৯৫ জন, ২০১৪ সালে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৭ হাজার ২৬৪জন এবং ২০১৫ সালে জিপিএ-৫ পেয়েছে ২০ হাজার ৭৪৭ জন।

পাশের হারে ছেলেরা জিপিএ-৫ প্রাপ্তিতে মেয়েরা এগিয়ে 

শিক্ষাবোর্ডে প্রকাশিত জেএসসি পরীক্ষার ফলাফলে পাশের হারের দিক থেকে এগিয়ে আছে ছেলেরা এবং জিপিএ-৫ প্রাপ্তির দিক থেকে এগিয়ে আছে মেয়েরা। এবছর ১লাখ ৮ হাজার ৫০৪ জন ছেলে পরীক্ষা দিয়ে পাশ করেছে ৭০ হাজার ৩৭৪ জন। ছেলেদের পাশের হার ৬৪.৮৬ শতাংশ এবং জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ হাজার ৩৭৫ জন। এদিকে এবছর ১ লাখ ৫৩ হাজার ২৪৯ জন মেয়ে পরীক্ষা দিয়ে পাশ করেছে ৯৪ হাজার ৮২ জন। মেয়েদের পাসের হার ৬১ দশমিক ৩৯ শতাংশ এবং জিপিএ-৫ পেয়েছে ৫ হাজার ৫০০জন।

সময় বাংলা/এএইচ

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন

এ বিভাগের আরো খবর