ঘাম থেকে বাঁচার উপায়

সময়বাংলা, সাস্থ্য: গরম বাড়ছে। চৈত্রের পর বৈশাখ এবার দোড়গোড়ায়। বছরের অন্যন্য সময়ের চেয়ে এই সময়টাতে ঘাম একটু বেশিই হয়। তবে কেউ কেই আছেন, যাদের ঘাম একটু অতিরিক্তই হয়। এই সমস্যা থেকে মুক্তি মিলবে সহজ সাতটি পরামর্শ। জেনে নিন সেগুলো।

১. ক্যাফেইন পরিহার করুন। চা, কফি এবং সিগারেটে ক্যাফেইন থাকে, যা মস্তিষ্ককে উত্তেজিত করে। আর এর ফলেই ঘাম বেরোয় দরদর করে। চা-কফির পরিমাণ কমিয়ে আনলে এই সমস্যা থেকে রেহায় পাওয়া যায় সহজেই।

২. যোগব্যায়ামের মাধ্যমে মস্তিষ্ককে ঠান্ডা রাখা সহজ হয়। এতে করে শরীরও ভেতর থেকে শীতল থাকে। ফলে ঘামও কমে।

৩. তেল-মশলাযুক্ত খাবার খাওয়া কমান। এইধরণের খাবার সুস্বাদু হলেও শরীরকে এগুলো উত্তপ্ত করে তোলে। ফলে ঘামও হয় বেশি।

৪. পোশাকের নিচে সুতির স্যান্ডোগেঞ্জি বা শেমিজ পড়লে অতিরিক্ত ঘাম হলেও ভেতরের কাপড়টি তা শুষে নেয়। ফলে বাইরে থেকে বোঝা যায় না।

৫. গরমের মধ্যে ফলের রস এবং লেবুপানি খাওয়ার অভ্যাস করলে শরীর ভেতর থেকেই থাকবে ঠাণ্ডা। তাতে ঘামের উৎসরণ হবে কম।

৬. গরমের মধ্যে দিনে কয়েকবার গলার পেছন থেকে ঘাড়ের অংশে পানি দেবেন। এতেও শরীর থাকবে ঠান্ডা।

৭. গোসলের পানিতে লেবুর রস ও কয়েক টুকরা কর্পুর ব্যবহার করুন। গোসলের সময় ভালোভাবে নিজেকে সাবান দিয়ে পরিস্কার করুন। এরপর ভালোভাবে শুকিয়ে নিন নিজেকে। এভাবে সারাদিন দেহ থাকবে ফুরফুরে, ঘামমুক্ত।

সময়বাংলা/আইজু

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন