পিস টিভির প্রতিষ্ঠাতা জাকির নায়েক সৌদি নাগরিকত্ব পেয়েছেন

সময় বাংলা ডেস্ক: পিস টিভির প্রতিষ্ঠাতা ভারতের নাগরিক জাকির নায়েক সৌদি নাগরিকত্ব পেয়েছেন। ভারতে সন্ত্রাসবিরোধী আইনে অভিযুক্ত জাকির নায়েকের নাগরিকত্ব পাওয়ার আবেদন মঞ্জুর করেছে সৌদি আরব।

সংবাদমাধ্যম পর্যবেক্ষণকারী লন্ডনভিত্তিক সংস্থা দ্য মিডল ইস্ট মনিটরের বরাত দিয়ে আজ শনিবার ইন্ডিয়া টুডের খবরে জাকির নায়েকের সৌদি নাগরিকত্ব পাওয়ার কথা জানানো হয়।

ওই খবরে বলা হয়, জাকির নায়েককে পুলিশের আন্তর্জাতিক সংস্থা ইন্টারপোলের গ্রেপ্তার থেকে রক্ষা করতে সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল-সৌদ তাঁর নাগরিকত্ব পাওয়ার আবেদন মঞ্জুর করেন।

৫১ বছর বয়সী জাকির নায়েকের প্রতিষ্ঠিত ইসলামিক রিসার্চ ফাউন্ডেশন (আইআরএফ) নিষিদ্ধ করেছে ভারত। ঢাকার গুলশানে হলি আর্টিজানে নিহত জঙ্গিদের কয়েকজন জাকির নায়েকের বক্তব্যে অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে। গুলশান হামলার পর জাকির নায়েকের কার্যকলাপ নজরদারিতে আনা হয়।

ধারণা করা হচ্ছিল, জাকির নায়েক গ্রেপ্তার এড়াতে সৌদি আরবে অবস্থান করছেন। গত বছরের নভেম্বরে ভারতের জাতীয় তদন্ত সংস্থা (এনআইএ) জাকির নায়েক ও তাঁর সহযোগীদের বিরুদ্ধে মামলা করে।

জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে বিভিন্ন গোষ্ঠীর মধ্যে ধর্ম নিয়ে বিদ্বেষ ছড়ানো এবং সম্প্রীতি নষ্ট করার অভিযোগ তোলা হয়েছে। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার তাঁর প্রতিষ্ঠিত আইআরএফকে অবৈধ প্রতিষ্ঠান হিসেবে ঘোষণা করে। আইআরএফের প্রেসিডেন্ট ও এর সদস্যরা ‘অবৈধ কার্যকলাপকে’ প্রশ্রয় দিচ্ছেন উল্লেখ করে দিল্লি হাইকোর্ট সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানকে নিষিদ্ধ ঘোষণার সিদ্ধান্ত বহাল রেখেছেন।

জাকির নায়েকের বক্তব্যের কারণে আইআরএফকে যুক্তরাজ্য ও কানাডায় নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এ ছাড়া মালয়েশিয়ায় নিষিদ্ধ ১৬ চিন্তাবিদের একজন জাকির নায়েক।

জাকির নায়েক অবশ্য শুরু থেকেই তাঁর বিরুদ্ধে আনা সব অভিযোগ নাকচ করে আসছেন। আইআরএফকে নিষিদ্ধ ঘোষণার বিরোধিতা করেন তিনি।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন