সাগরে ভাসমান শরণার্থীদের গ্রহণ করল স্পেন

Migrants look at the coastline as they stand aboard rescue ship MV Aquarius, off the coast of Sicily on May 14, 2018. Some 73 migrants of various nationalities, including women and children were rescued by MV Aquarius on May 12. The rescue vessel which has been chartered by SOS-Mediterranee and Doctors Without Borders (MSF) is heading to the Italian port of Messina. / AFP PHOTO / LOUISA GOULIAMAKI

সময়বাংলা, ডেস্ক: সম্প্রতি ভূমধ্যসাগরে ভাসতে থাকা ৬২৯জন শরণার্থীকে ইতালিক গ্রহণ করবে না জানিয়ে দেয়ার পর মানবিক কারণে তাদের গ্রহণ করেছে স্পেন। ইতালি ও মাল্টার পাল্টাপাল্টি বিবৃতির কারণে সোমবার সারাদিন সাগরেই ছিলো শরণার্থীদের বহনকারী জাহাজ অ্যাকোয়েরিয়াস।

১২৩ জন নাবালক ও সাত অন্তঃসত্ত্বাসহ ৬২৯ শরণার্থী নিয়ে ভাসতে থাকা জাহাজটিকে মঙ্গলবার স্পেনের ভালেন্সিয়া বন্দরে ঢোকার অনুমতি দেওয়া হয়েছে বলে ঘোষণা দেন স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো সানচেজ।

শনিবার রাত থেকে রবিবার সকাল পর্যন্ত ছয়টি অভিযানে ৬২৯ জন শরণার্থীকে উদ্ধার করে নিজেদের জাহাজে তোলে সেচ্ছাসেবী সংস্থা। কিন্তু তাদের কাছাকাছি থাকা দুটি দেশ ইতালি ও মাল্টা জাহাজটি নোঙরের অনুমতি দেয়নি। ইতালি জাহাজটিকে তাদের দেশে ঢুকতে না দেয়ার ঘোষণা দিয়ে মাল্টাকে তাদেরকে গ্রহণের অনুরোধ জানায়।

ইতালির অনুরোধের পর মাল্টা সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয় এটি মাল্টার নিয়ন্ত্রাধীন এলাকা নয়। সেকারণে তারা জাহাজটিকে গ্রহণ করবে না।

ইতালির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মাতেও সলভিনি রবিবার বন্দর বন্ধের নির্দেশ দিয়ে সাফ জানিয়ে দেন, ‘জীবন বাঁচানো কর্তব্য। কিন্তু তা বলে ইতালিকে একটা বিরাট শরণার্থী শিবিরে পরিণত করা যায় না।’

এরপরই জাহাজের শরণার্থীদের আশ্রয় দেয়ার আহ্বান জানায় জাতিসংঘ ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন। তারপরই স্পেন তাদেরকে আশ্রয় দেয়ার ঘোষণা দেয়।

সময়বাংলা/আইসা

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন

এ বিভাগের আরো খবর