স্পেশাল নিয়োগে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের চাকরি দাবি

সময় বাংলা, ডেস্ক:

স্পেশাল নিয়োগের মাধ্যমে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের চাকরি দেয়ার দাবি জানিয়েছে ‘আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান’ কেন্দ্রীয় কমিটি। একই সঙ্গে মুক্তিযোদ্ধা কোটা বহাল রাখতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আহবান জানানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে সংগঠনের সভাপতি মো. সাজ্জাদ হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান এ দাবি জানান।

এখনও লাখ লাখ মুক্তিযোদ্ধার সন্তান বেকার হয়ে আছে উল্লেখ করে বিবৃতিতে বলা হয়, মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য সরকারি কোটা থাকলেও এই কোটায় যোগ্যতার দোহাই দিয়ে তাদের মৌখিক পরীক্ষা থেকে বাদ দিয়ে দেয়া হয়। একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান প্রিলি, লিখিত, মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর তার আর কী যোগ্যতার প্রমাণ দিতে হবে?

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, ১৯৭৫ সালে জাতির পিতা হত্যার পর থেকে ১৯৯৬ সাল পর্যন্ত মুক্তিযোদ্ধা কোটা নিয়ে ষড়যন্ত্র হয়েছে। ২০০১ সালের পর মুক্তিযোদ্ধা কোটা আবারও ষড়যন্ত্রের বেড়াজালে আবদ্ধ হয়। এভাবে দেশ স্বাধীন হওয়ার পর ২৮ বছর কোটায় কোনও মুক্তিযোদ্ধার সন্তানের চাকরি হয়নি। মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানের দিকে তাকিয়ে হলেও এই কোটা বহাল রাখা জরুরি বলে বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়।

বুধবার জাতীয় সংসদের অধিবেশনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কোটা সংস্কারের বিষয়ে বলেন, সরকারি চাকরিতে যখন কেউই কোটা চায় না, তখন কোনো কোটাই থাকবে না, কোনো কোটার দরকার নেই।

এসএস

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন

এ বিভাগের আরো খবর