মহান বিজয় দিবসের আলোচনা ও সংবর্ধনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে পর্তুগালে

সময় বাংলা/পর্তুগাল

portogal 16dec picপর্তুগালের এর রাজধানী লিসবনে বৃ্হত্তর নোয়াখালী এসোসিয়েশন অব পর্তুগালের এর উদ্যগে মহান বিজয় দিবসের ও পর্তুগাল সফররত বাংলাদেশের স্হানীয় সরকার মন্ত্রনালয়ের সম্মানিত সচিব সহ এক ঝাঁক উপজেলা চেয়ারম্যান এবং স্বনামধন্য বাংলাদেশের প্রখ্যাত সাংবাদিক ইন্ডিপেন্ডেন্ট টিভির জনাব মঞ্জুরুল করিম পলাশের সম্মানে এক আলোচনা ও সংবর্ধনা নৈশভোজ সভায় অনুষ্ঠিত হয়। লিসবনের ফুড ভিলেজ ইন্ডিয়ান রেষ্টুরেন্টে আয়োজিত উক্ত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এবং বিশিষ্ট কমিউনিটি ব্যাক্তিত্ব জনাব আবুল কালাম আজাদ৷ সংগঠনের সহ সাধারন সম্পাদক নজরুল ইসলাম সুমনের সঞ্চালনায় উক্ত অনু্ষ্ঠানের শুরুতে সম্মানিত অতিথিদের ফুল দিয়ে বরন করে নেন সংগঠনের আব্দুল করিম মানিক, মনজুর হোসাইন জিন্নাহ,সুমন, ইমরান রাজু ৷উক্ত অনুষ্ঠানে  সম্মানিত অতিথি হিসেবে ঊপস্হিত ছিলেন স্হানীয় সরকার মন্ত্রনালয়ের সম্মানিত সচিব জনাব শহীদুল ইসলাম, ফেনী ছাগলনাইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান জনাব সোহেল চৌধুরী, নরসিংদী জেলার সম্মানিত এডিসি জনাব জসিম উদ্দন এবং ইন্ডিপিন্ডেন্ট টেলিভিশন এর সাংবাদিক ক্রাইম প্রোগ্রাম তালাশ এর উপস্হাপক জনাব মঞ্জুরুল করিম পলাশ৷

সভায় শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সচিব জনাব শহীদুল ইসলাম, উপজেলা চেয়ারম্যান জনাব সোহেল চৌধুরী, এডিসি জনাব জসিম উদ্দন, সাংবাদিক জনাব মঞ্জুরুল করিম পলাশ,সংগঠনের উপদেষ্ঠা জনাব নূর নবী, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল কাদের বাপ্পী, প্রচার সম্পাদক রনী মোহাম্মদ, সম্পাদক মনজুর হোসাইন জিন্নাহ, বাংলা টিভির লিসবন প্রতিনিধি জনাব সেলিম উদ্দিন, বিশিষ্ঠ কমিউনিটি ব্যাক্তিত্ব শাহাদাত হোসেন সহ প্রমুখ৷
এ সময় বক্তারা অনুষ্ঠানে মহান বিজয় দিবস মুল্যায়ন এবং মহান বীর শহীদ দের আত্মত্যাগ নিয়ে আলোচনায় বলেন ১৬ ডিসেম্বর স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের দিন। দীর্ঘ ৯ মাস সশস্ত্র সংগ্রাম করে বহু প্রাণ আর রক্তের বিনিময়ে এদিনে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর কাছ থেকে বাংলাদেশের মানুষ ছিনিয়ে আনে বিজয়ের লাল সূর্য। প্রবাসীদের বাংলাদেশ বিমান বন্দরে প্রবাসী হয়রানী বন্ধে, বাংলাদেশের পুলিশ ক্লিয়ারেনসের ঘুষ বানিজ্য বন্দ্ব করা ও বাংলাদেশে পর্তুগালের দুতাবাস স্হাপনের জন্য পদক্ষেপ নেওয়ার দাবী এবং দৃষ্টি আকর্ষন করেন৷ স্হানীয় সরকার মন্ত্রনালয়ের সম্মানিত সচিব জনাব শহীদুল ইসলাম তার বক্তব্যের শুরুতে সকল প্রবাসীদের কে ধন্যবাদ জানিয়ে  প্রবাসীদের এই সকল দাবীর বিষয়ে একত্মতা প্রকাশ করে বলেন এসব বিষয়ে তাঁরা সরকারের উচ্চ পর্যায়ে যোগযোগের করবেন এবং প্রবাসীদের মহান মুক্তিযুদ্ধ থেকে শুরু করে আজোবধি বাংলাদেশের প্রতিটি কর্মকান্ডে যে অবদান রয়েছে জাতি সর্বদা কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরন করে। ইন্ডিপিন্ডেন্ট টেলিভিশন এর সাংবাদিক মঞ্জুরুল করিম পলাশ তার বক্তব্যে বলেন আঞ্চলিকতার টানে ছুটে আসা প্রবাসীদের কাছ থেকে আজ যে সংবর্ধনা পেলাম হাজার মাইল দুরে এসোও প্রবাসীদের ভালোবাসায় আমি ঋণী হয়ে থাকবো এবং প্রবাসীদের এই ভালোবাসায় আমি মুগ্ধ।
সভায় আরো উপস্হিত ছিলেন সংগঠনের প্রধান উপদেষ্ঠা জনাব রানা তাসলিম উদ্দিন সহ স্বনামধন্য এক ঝাঁক উপজেলা চেয়ারম্যান ফিরোজ আল মাসুদ (দৌলতদিয়া), সেলিম চৌধুরী (মনপুরা ভোলা),মনিরুল জামান (তালতলী বরগুনা),সাইফুল ইসলাম দীরু (মনরহদী নরসিংদী), সামছু উদ্দিন কালু (লাঙ্গল কোট কুমিল্লা),চৌধুরী কামরুল হাসান (ইতনা কিশোরগঞ্জ), আমিরুল ইসলাম (বীরগঞ্জ দিনাজপুর), জাহাঙ্গীর আলম (সদর বি বাড়ীয়া),হাবীবুর রহমান চাঁদ (জামালপুর), এবং ভাইস চেয়ারম্যান এমদাদুল হক (ঝালকাঠি),তাজবীরুল ইসলাম (সদর গোপালগঞ্জ), মিসেস আকলিমা খাতুন (চৌগাছা যশোর), শামছুন নাহার (কাশিয়ানী গোপালগঞ্জ), রাবেয়া ইসলাম ডলী (গৌরিপুর ময়মনসিংহ), বৃ্হত্তর নোয়াখালী এসোসিয়েশন অব পর্তুগাল সাংগঠনের আমিনুর রাহুমান ভূঁঞা,তানবীর তুরাজ,মনির হোসেন, রসি,মোহাম্মদ সৌরভ, মোহাম্মদ তন্ময়, মহিন উদ্দিন সহ সংগঠনের নেত্রীবৃন্দ সহ পর্তুগাল প্রবাসী বাংলাদেশীরা৷
সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন