বাংলাদেশকে আইএসের বিষয়ে তথ্য দেবে যুক্তরাষ্ট্র

সময় বাংলা, ঢাকা:

barnikatইসলামিক স্টেটের (আইএস) বিষয়ে বাংলাদেশকে বিস্তারিত তথ্য দিতে চায় যুক্তরাষ্ট্র।

আজ মঙ্গলবার সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের সঙ্গে বৈঠকের পর বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শা স্টিফেনস ব্লুম বার্নিকাট এ আশ্বাস দিয়েছেন।

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের ওই তথ্য জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কার্যালয়ে যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। পরে দুপুর ১টা থেকে ২টা পর্যন্ত স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠক হয় ঢাকায় নবনিযুক্ত যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনার অ্যালিসন ব্লেকের সঙ্গে। দুপুর ২টার পর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের ব্রিফিং করেন।

ব্রিফিংয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমনে বাংলাদেশ যে পদক্ষেপ নিয়েছে, তার প্রশংসা করেছে যুক্তরাষ্ট্র। তিনি জানান, বার্নিকাট তাঁকে বলেছেন, বাংলাদেশে আইএসের তৎপরতার ও হুমকির বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে তথ্য আছে। মার্কিন একজন বিশেষজ্ঞ বাংলাদেশ সফর করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে এসব তথ্য দিতে চান।

মার্কিন রাষ্ট্রদূতের প্রস্তাবের বিষয়ে সাংবাদিকদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘এই প্রস্তাবের বিষয়ে আমিও তাঁকে স্বাগত জানিয়ে বলেছি, বাংলাদেশ সব ধরনের তথ্য আদান-প্রদানে বিশ্বাসী। তাদের কাছে কোনো তথ্য থাকলে তা অবশ্যই আমরা গ্রহণ করব।’

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, জঙ্গি হুমকি ও সন্ত্রাস মোকাবিলায় বাংলাদেশ কীভাবে সফল হচ্ছে, তা জানতে চেয়েছেন মার্কিন রাষ্ট্রদূত। বাংলাদেশের সরকার ও জনগণ এসব বিষয় প্রশ্রয় দেয় না বলেই মার্কিন রাষ্ট্রদূতকে জানিয়েছেন তিনি।

বাংলাদেশে আইএস আছে কি না- যুক্তরাষ্ট্রের এমন প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, ‘আজকের বৈঠকে বাংলাদেশে আইএস আছে কি না, এমন কোনো তথ্য মার্কিন রাষ্ট্রদূত দেননি। তবে তিনি বাংলাদেশে আইএসের হুমকির কথা বলেছেন।’

‘আমার জানামতে, বাংলাদেশে আইএসের অস্তিত্ব নেই। তবে আইএসের হুমকি এখন গোটা বিশ্বজুড়েই রয়েছে’, যোগ করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

সোমবার পাকিস্তানি কূটনীতিককে আটকের চার ঘণ্টা পর ছেড়ে দেয়া হয়।

পাকিস্তান দূতাবাস দাবি করেছে, ওই কূটনীতিকের কাছে পুলিশ দুই কোটি টাকা দাবি করেছিল। এতে বাংলাদেশের মর্যাদা ক্ষুণœ হয়েছে কি না এবং দায়ী পুলিশ সদস্যদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে কি না, সে প্রশ্ন করা হয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে। জবাবে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘আপনি আমার কাছে যে তথ্য দিয়েছেন, তা আমি অবশ্যই তদন্ত করে দেখব এবং কার্যকর ব্যবস্থা নেব।’

শেরপুরে অস্ত্র উদ্ধারের ঘটনায় মন্তব্য জানতে চাওয়া হলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন, বিগত সরকারের সময় ভারতে বিচ্ছিন্নতাবাদীরা বাংলাদেশের বিভিন্ন জায়গায় অস্ত্র মজুদ করেছিল।

কিছুদিন আগে সিলেটে কিছু অস্ত্র উদ্ধার হয়েছে। বর্তমান সরকার এই বিচ্ছিন্নতাবাদীদের আশ্রয়-প্রশ্রয় দিচ্ছে না। তাদের লুকানো অস্ত্রও বেরিয়ে আসছে।

যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনারের সঙ্গে বৈঠক প্রসঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘তিনি নতুন এসেছেন। সৌজন্য সাক্ষাৎ হয়েছে। দ্বিপক্ষীয় বিভিন্ন বিষয়েও আলোচনা হয়েছে।’

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন