সিঙ্গাপুরে প্রবাসী তিন লেখকের বইয়ের মোড়ক উন্মোচন

সময় বাংলা, সিঙ্গাপুর

22 singapurপ্রতিবছরের মতো প্রবাসীদের লেখা বইয়ের মোড়ক উন্মোচন হলো সিঙ্গাপুরে। এবারের ভ্যানু ছিল সিঙ্গাপুর ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি। ৩১ জানুয়ারি ২০১৬ বিশ্ববিদ্যালয়ে শুরু হওয়া চারদিনব্যাপী অভিবাসী সপ্তাহের প্রথম দিনে সিঙ্গাপুরের একমাত্র বাংলা পত্রিকা বাংলার কণ্ঠ ও সিঙ্গাপুর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের উদ্যোগে বাংলার কণ্ঠ প্রকাশনার ছয়টি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে।
যুগ হতে যুগে, কালের পরিক্রমায় ভাষা আর বইয়ের স্রোতধারায় ফেব্রুয়ারি জুড়ে বাঙালির এই ভাষা উৎসব বাঙালিত্বের অন্যতম বাহক। বাংলা ভাষা আর বাঙালিত্বকে লালন করে সিঙ্গাপুরের প্রবাসীরাও প্রতিবছর লিখে চলেছেন তাদের কথা, ব্যথা, স্বপ্ন ও কল্পনার সাতকাহন, সিঙ্গাপুরের শ্রমজীবী প্রবাসীদের এই সুপ্ত প্রতিভাকে ২০০৬ সাল থেকে জাগ্রত ও প্রকাশ করে যাচ্ছে বাংলার কণ্ঠ।

গত বছরের বইমেলায় প্রকাশিত বাংলার কণ্ঠ প্রকাশনার ছয়টি বইয়ের মোড়ক উন্মোচিত হয়েছিল সিঙ্গাপুর ন্যাশনাল লাইব্রেরিতে, যার ধারাবাহিতায় সিঙ্গাপুর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে এবারের আয়োজন।

বিকাল তিনটায় সেরাঙ্গুন থেকে বাস পৌঁছে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে। ছাত্রছাত্রীরা স্বাগত জানান শ্রমজীবীদের, সমগ্র ক্যাম্পাস ঘুরিয়ে দেখান। এরপরে শ্রমজীবীদের সুপ্ত প্রতিভা পরিস্ফুটিত করার লক্ষ্যে একঘণ্টাব্যাপী চলে লেখার কর্মশালা। কর্মশালা উপস্থিত প্রবাসীরা বিভিন্ন বিষয়ে লিখেন। সে লেখার ওপর আলোচনা।

মনিশংকর প্রসাদ পরিচালনা করেন কর্মশালা। সহযোগিতায় ছিলেন জাহাঙ্গীর আলম ও কাজী শিহাব উদ্দিন। এ সময় সিঙ্গাপুরে নব্বইয়ের দশকে কিভাবে চিঠিপত্র লেখার মাধ্যমে সাহিত্যের যাত্রা শুরু সেই ইতিহাস তুলে ধরেন মোহসীন।

সন্ধ্যা সাতটার দিকে আইন বিভাগের এল টু অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় মূলপর্ব, বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত মনিশংকরের সঞ্চালনায় প্রথমে শ্রমজীবী সাহিত্য ও এতে বাংলার কণ্ঠের ভূমিকা নিয়ে বক্তব্য রাখেন বাংলার কণ্ঠ সম্পাদক এ কে এম মোহসীন। এরপরে আইন বিভাগের ডিন Cipe Trisha Craig ছাত্র ও শ্রমজীবীদের মাঝে তিন প্রবাসী লেখকের ছয়টি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করে বক্তব্য দেন। বইগুলো হচ্ছে মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবুর উপন্যাস ‘বন্ধু তুমি সায়াহ্নে’ কবিতার বই ‘কষ্ট বিলাস’ ও ১৮০ ডিগ্রী, কাজী শিহাব উদ্দিন লিটনের দুইটি কবিতার বই ‘ফেরারি প্রেম’ ও ‘সারাবিশ্বে মুজিবেরা’ কাউসার আহমেদের উপন্যাস ‘শ্রাবণ মেঘে ঢাকা’।
সাংস্কৃতিক পর্বে স্বরচিত কবিতা পাঠ করেন এনামুল হক, নীলিমা নুপুর, শ্রমিক মনির, মোহর খান, এম এ সবুর, শরীফ উদ্দিন,সৈয়দুর রহমান লিটন,মোহসীন আকবর, তারেক হাসান, মাহবুব হাসান, জাহাঙ্গীর আলম বাবু ও শিহাব উদ্দিন লিটন। প্রতিটি কবিতার ইংরেজি অনুবাদ প্রজেক্টরে দেখানো হয়,সে সাথে ইংরেজি অনুবাদ পাঠ করে শোনান বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা।

কবিতার পর বাংলার কণ্ঠ সাহিত্য পরিষদের সদস্য গণ ফ্যাশন শো ও মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন রণাঙ্গনের যোদ্ধার উজ্জীবিতরী কালজয়ী আপেল মাহমুদের কণ্ঠের গানের সাথে বিশেষ কোরীয়গ্রাফি উপস্থিত দর্শকদের মন জয় করে।

মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবুর লেখা ও নির্দেশনায় প্রবাসীদের নিয়ে নাটক অবাঞ্ছিত প্রদর্শনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়। যার মূল চরিত্র বাবার আলী রূপায়নে ছিলেন নাট্যকার নিজে আর সাংবাদিক চরিত্রে অভিনয় করেন কাজী শিহাব উদ্দিন লিটন।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন