মা দিবস পালন করেছে মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালী

ইসমাইল হোসেন স্বপন, ইতালি থেকে: মা দিবস পালন করেছে মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালীমা কথাটি ছোট্ট অতি কিন্তু যেন ভাই/মায়ের চেয়ে নাম যে মধুর, ত্রিভুবনে নাই। গত ১৩ ই মার্চ বাংলাদেশে বিশ্ব মা দিবস পালন হয়। তারই ধারাবাহিকতায় ইতালীর প্রবাসী নারীরা পিছিয়ে নয় বাংলাদেশের সাথে তাল মিলিয়ে ভিন্নধর্মী আয়োজনের মাধ্যমে ” মা ” কে স্বরণ করে মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালী ।

১৪ মার্চ স্থানীয় সময় ৮ ঘটিকায় মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালীর উদ্দোগে তরপিনাত্তারা একটি হলরুমে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয় ।অনুষ্টানে মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালীর সভাপতি লায়লা শাহ’র সভাপতিত্বে ও সৈয়দা শামীমা জামান এর পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন সহ সভাপতি নার্গিস হাওলাদার, নিলুফা বানু, ফাতেমা কবির, সহ সাধারণ সম্পাদক তাহমিনা আক্তার, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবা আক্তার চৌধুরী বাবলি, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেনাজ তাবাস্সুম শেলি, কোষাধ্যক্ষ নার্গিস আক্তার, মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা ইফরোজা খানম ইফা , প্রচার সম্পাদক হেনা আক্তার ফাহিমা সহ আরো অনেকেই ।বক্তারা বলেন মায়ের কাছে সন্তানের ঋণ পরিশোধের দিন মা দিবস। ভক্তি-শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় ভরিয়ে দিয়ে তার আশীর্বাদ পাওয়ার দিন।

কালে কালে একটি কথাই চিরায়ত সত্যিতে পরিণত হয়েছে, আর সেটি হচ্ছে- পৃথিবীতে মা শব্দের চেয়ে অতি আপন শব্দ আর দ্বিতীয়টি নেই।সন্তানের কাছে সবচেয়ে আপন, সবচেয়ে প্রিয় হচ্ছেন তার মা।আমরাও মা আমরাও ভুলিতে পারচিনা আমার মা , শাশুড়ি ও মেয়েদের ।আমাদের মায়েরা আমাদের মানুষের মত মানুষ করতে গর্ভে সন্তান যেমন রক্ত শুষে নিরাপদে ধীরে ধীরে বড় হয়, তেমনি জন্মের পরও তিল তিল করে মা-ই কেবল তার নাড়িছেঁড়া ধনকে তিলে তিলে বড় করে তোলেন আগামীর সম্ভাবনাময় একজন মানুষ হিসেবে।এসব কথা ব্যাক্ত করে মা কে স্বরণ করে কান্নায় ভেঙে পড়েন মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালীর নেতৃবৃন্দরা ।

সভায় মাকে ভালোবাসা আর তার প্রতি হৃদয় নিংড়ানো শ্রদ্ধার বিষয়টি পবিত্র ধর্মগ্রন্থগুলোতে অত্যধিক গুরুত্ব দেয়া হয়েছে।পরিশেষে বক্তব্য রাখেন মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালী সভাপতি লায়লা শাহ তিনি বলেন প্রতি বছর আমরা মা দিবস পালন করে থাকি এবার একটু ভিন্ন ধর্মী ভাবে মা কে সৃতি স্বরণে বাংলাদেশের সাথে তাল মিলিয়ে আমাদের আয়োজন।মা, মাতৃত্ব, মাতৃত্বের বন্ধন এবং পরিবার ও সমাজে মায়ের অবদানের স্বীকৃতি ও সম্মান প্রদর্শনের উদ্দেশ্যেই মা দিবস পালন করা হয়। মা দিবসের মূল উদ্দেশ্য, মাকে যথাযথ সম্মান দেওয়া। যে মা জন্ম দিয়েছেন, লালন-পালন করেছেন, তাকে শ্রদ্ধা দেখানোর জন্য দিবসটি পালন করা হয়।

শুধু একটি বিশেষ দিন নয়, মায়ের প্রতি সন্তানের ভালোবাসা প্রতি দিনের। প্রতি মুহূর্তের। মায়ের জন্য বিশেষ দিন থাকার দরকার আছে কিনা তা নিয়ে বিতর্ক থাকতেই পারে। কিন্তু একটি বিশেষ দিনে মাকে না হয় সবাই একটু বেশিই ভালোবাসি। যারা আজও বলেননি, মা তোমাকে ভালোবাসি।এবং পরিশেষে মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি সকল নেতৃবৃন্দদেরা সকল মরহুমা মায়েদের জন্য দোয়া প্রার্থনা করেন এবং গান পরিবেশন করেন ” জন্ম আমার ধন্য হল মাগো ” সেই গানের মধ্যে দিয়ে তারা মায়েদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান।শেষে মহিলা সমাজ কল্যাণ সমিতি ইতালীর ব্যবস্থাপনায় নৈশৌভোজের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয়।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন

এ বিভাগের আরো খবর